1. admin@manirampurprotidin.com : admin :
  2. hnurul146@gmail.com : nurul :
  3. titonews24@gmail.com : Tito :
শিরোনাম :
কেশবপুর উপজেলা চেয়ারম্যানকে হত্যার হুমকির প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মণিরামপুরে সাংবাদিক পুত্র মাহির গোল্ডেন জিপিএ-৫ লাভ মণিরামপুরে ইকবালকে কমিটি গঠন কার্যক্রম থেকে বিরত থাকার নির্দেশ : রোহিতার আহ্বায়ক বহিষ্কার মণিরামপুরে ২দিন ব্যাপি ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলার শুভ উদ্বোধন মণিরামপুরে গ্রাম ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় স্কুল ছাত্রীর হাতে পঁচন ।। আদালতে মামলা মণিরামপুরে সাবেক অধ্যক্ষ মাওলানা বজলুর রহমানের ইন্তেকাল আয়েবাপিসি’র সাধারন সম্পাদক বকুল খানকে যুক্তরাজ্যে বিভিন্ন সংগঠনের সংবর্ধনা সাতবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদ সচিবের প্রকাশ্যে ঘুষ গ্রহন মণিরামপুর জুয়েলারী সমিতি পক্ষ থেকে কাউন্সিলর বাবুলাল চৌধুরীকে সংবর্ধনা মণিরামপুরের শীর্ষ ব্যবসায়ী রতন পালের স্ব-পরিবারে ভারত পাড়ি! কিন্তু কেন ?

মণিরামপুরে স্কুলের মাঠ দখল করে রাখা হয়েছে সড়কের নির্মাণ সামগ্রি

  • আপডেট: রবিবার, ২২ মার্চ, ২০২০
  • ৩৩৮ দেখেছেন

বিশেষ প্রতিনিধি॥
মনিরামপুরে খানপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের খেলার মাঠে চলছিল বঙ্গবন্ধু ফুটবল টুর্নামেন্ট। কিন্তু হঠাৎকরেই করোনা আতংকে টুর্নামেন্ট স্থগীত করা হয়েছে। আর এ সুযোগে খেলার মাঠ জুড়ে রাখা হয়েছে নেহালপুর সড়ক নির্মানের ইট, খোয়া, মাটিসহ যাবতীয় সামগ্রি। অভিযোগ রয়েছে নির্মাণ সামগ্রি রাখার সময় বাঁধা দেওয়ায় ঠিকাদারের পক্ষ থেকে পুলিশ দিয়ে শাসানো হয়েছে প্রতিবাদকারীদের। তবে পুলিশ এ অভিযোগ অস্বীকার করেছে।
খানপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামলীগের সভাপতি গাজী মোহাম্মদ আলী জানান, খানপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠে চলছিল সপ্তাহব্যাপী বঙ্গবন্ধু ফুটবল টুর্নামেন্ট। আর এ টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত হবার কথা ছিল ২৭ মার্চ। কিন্তু করোনা আতংকে টুর্নামেন্ট স্থগীত করা হয়েছে। আর এ সুযোগে মনিরামপুর মোহনপুর-নেহালপুর-কপালীয়া সড়ক নির্মাণের টিকাদার প্রতিষ্ঠান এসআর এন্টারপ্রাইজের পক্ষ থেকে খানপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মাঠজুড়ে রাখা হয়েছে ইট, খোয়া, মটিসহ যাবতীয় নির্মাণ সামগ্রি।
রোববার দুপুরে সরেজমিন গিয়ে দেখা যায় ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে ট্রাকে করে বিদ্যালয়ের মাঠে ইট-মাটি ফেলা হচ্ছে। এ সময় কথা হয় ইব্রাহিম হোসেন নামে এক ব্যক্তির সাথে। তিনি নিজেকে ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান এসআর এন্টারপ্রাইজের ম্যানেজার দাবি করে জানান, যেহেতু ফুটবল টুর্নামেন্ট স্থগীত করা হয়েছে তার ওপর এ সড়কটি দ্রুত নির্মানের তাগিদ থাকায় সংশ্লিষ্টদের অনুমতি নিয়েই স্কুলের এই মাঠটি ব্যবহার করা হচ্ছে। তিনি আরো জানান, শুধু এ মাঠটি নয়, অনুরূপভাবে মনোহরপুর কারিগরী কলেজে মাঠেও নির্মান সামগ্রি রাখা হচ্ছে। তবে বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আবু তালেব জানান, তার কাছ থেকে কোন অনুমতি না নিয়েই খেলার মাঠে নির্মান সামগ্রি ফেলা হয়েছে। এ সময় ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সভাপতি অলিয়ার রহমানসহ স্থানীয়রা অভিযোগ করেন, নির্মাণ সামগ্রি মাঠে রাখার সময় বাঁধা দেওয়াই শনিবার বিকেলে পুলিশ দিয়ে তাদেরকে শাসানো হয়েছে। তবে মনিরামপুর থানার সেকেন্ড অফিসার এসআই দিবাশীষ মন্ডল এ অভিযোগ অস্বীকার করে জানান, গোলযোগের খবর পেয়ে পুলিশ ওই এলাকায় গিয়েছিল। বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সাজেদা খাতুন জানান, খেলারমাঠে নির্মান সামগ্রি রাখার ব্যাপারে তিনি কিছুই জানেননা। উপজেলা প্রকৌশলী রবিউল ইসলাম এ ব্যাপারে কোন সদুত্তোর দিতে পারেনি।


এ খবর টি সোস্যাল মিডিয়াতে এ পোষ্ট করুন

এ জাতীয় আরও খবর




© All rights reserved © 2013-2022