1. admin@manirampurprotidin.com : admin :
  2. hnurul146@gmail.com : nurul :
  3. titonews24@gmail.com : Tito :
শিরোনাম :
অল ইউরোপিয়ান বাংলা প্রেসক্লাবের ভার্চুয়াল সাধারণ সভা অনুিষ্ঠত : অভিষেকের প্রস্তুতি হাইকোর্টের নির্দেশে কেশবপুরে অবৈধ “রোমান ব্রিকস” ভেঙ্গে দিল প্রশাসন মাদ্রিদে হবিগঞ্জবাসীর মিলন মেলায় মুখরিত লাভপিয়েছ মণিরামপুরের জুড়ানপুর বালিকা বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষককে হাজিরা খাতায় স্বাক্ষরে বাঁধা মালিতে জাতিসংঘ শান্তিপদক পেলেন বাংলাদেশের ১৩৯ জন শান্তিরক্ষী কেশবপুর উপজেলা চেয়ারম্যানকে হত্যার হুমকির প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মণিরামপুরে সাংবাদিক পুত্র মাহির গোল্ডেন জিপিএ-৫ লাভ মণিরামপুরে ইকবালকে কমিটি গঠন কার্যক্রম থেকে বিরত থাকার নির্দেশ : রোহিতার আহ্বায়ক বহিষ্কার মণিরামপুরে ২দিন ব্যাপি ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলার শুভ উদ্বোধন মণিরামপুরে গ্রাম ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় স্কুল ছাত্রীর হাতে পঁচন ।। আদালতে মামলা

করোনার ভাইরাস এর ভ্যাকসিন বানাতে সক্ষম হয়েছেন যুক্তরাষ্ট্রের পিটসবার্গ ইউনিভার্সিটির বিজ্ঞানীরা

  • আপডেট: শুক্রবার, ৩ এপ্রিল, ২০২০
  • ৫১২ দেখেছেন

 

করোনা চীনে মহামরি আকার ধারণ করলে তখন থেকেই বিভিন্ন দেশের গবেষকরা করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিন নিয়ে কাজ করছে। একেক সময় এক দল নিজেদের গবেষণা নিয়ে তথ্য দিয়ে যাচ্ছেন। তারা একে অপরকে প্রাথমিক ভাবে সফল দাবি করছেন। তবে এখন আনুষ্ঠানিকভাবে ভ্যাকসিন আবিষ্কারের কোন ঘোষণা আসেনি।

তবে করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিন আবিষ্কার করতে সক্ষম হয়েছেন বলে দাবি করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের পেনসিলভানিয়ার পিটসবার্গ ইউনিভার্সিটির বিজ্ঞানীরা। তারা দাবি করেছেন যে তাদের তৈরি ভ্যাকসিনটি করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ রোধ করতে শক্তির স্তর অর্জন করেছে।

মার্কিন সংবাদ মাধ্যম নিউইয়র্ক পোস্টের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নতুন করোনাভাইরাসের একটি কার্যকরী ভ্যাকসিন পেয়ে গেছেন বলে গবেষকদের বিশ্বাস। তাদের দাবি, ইঁদুরের শরীরে ভ্যাকসিনটি প্রয়োগের পর অ্যান্টিবডি তৈরি হয়েছে। চিকিৎসা বিষয়ক বিখ্যাত ল্যানসেট জার্নালে করোনার ভ্যাকসিন আবিষ্কার নিয়ে পিটসবার্গের স্কুল অব মেডিসিনের এই গবেষণা প্রকাশ হয়।

বৃহস্পতিবার গবেষকেরা এক ঘোষণায় জানান, ভ্যাকসিনটি রোগের বিস্তারকে উল্লেখযোগ্যভাবে প্রভাবিত করতে দ্রুত কার্যকর হতে পারে। গবেষকেরা নতুন এই ভ্যাকসিনের তারা নাম দিয়েছেন ‘পিটকোভ্যাক’। যার পূর্ণরূপ পিটসবার্গ করোনাভাইরাস ভ্যাকসিন।

পিটসবার্গ স্কুল অব মেডিসিনের সহযোগী অধ্যাপক ডাক্তার আন্দ্রে গামবট্টো বলেন, ‘২০০৩ সালে সার্স করোনাভাইরাস এবং ২০১৪ সালে মার্স করোনাভাইরাসের ব্যাপারে আমাদের অভিজ্ঞতা আছে। ভাইরাসের বিরুদ্ধে কীভাবে ইমিউন সিস্টেমকে শক্তিশালী করে কাজে লাগাতে হয়, সেটা আমাদের জানা আছে। নতুন এই করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে অ্যান্টিবডি তৈরি করতে সক্ষম আমাদের এই ভ্যাকসিন।’

তিনি বলেন, ‘ইতিমধ্যে আমরা অনেক দূর এগিয়ে গেছি। এখন ভ্যাকসিনটি প্রস্তুত করতে অর্থের প্রয়োজন। কারণ একই করোনা মোকাবিলা করা না গেলে পরের অবস্থা ঠিক কী হবে, আমরা আসলে জানি না। বিভিন্ন দেশের বিজ্ঞানীরা ভ্যাকসিন আবিষ্কারের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন। তবে সবার আগে এটি তৈরি করাটা জরুরি। আমাদের সেই ক্ষমতা এবং দক্ষতা রয়েছে।’

ভ্যাকসিনটির অনুমোদনের জন্য যুক্তরাষ্ট্রের খাদ্য এবং ওষুধ প্রশাসন (এফডিএ) এর কাছে আবেদন জানিয়েছেন গবেষকেরা। তারা আশা করছেন, আগামী কয়েক মাসের মধ্যে মানুষের শরীরে তারা ভ্যাকসিনটির ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল শুরু করতে পারবেন।


এ খবর টি সোস্যাল মিডিয়াতে এ পোষ্ট করুন

এ জাতীয় আরও খবর




© All rights reserved © 2013-2022