1. admin@manirampurprotidin.com : admin :
  2. hnurul146@gmail.com : nurul :
  3. titonews24@gmail.com : Tito :
শিরোনাম :
মণিরামপুরে ইকবালকে কমিটি গঠন কার্যক্রম থেকে বিরত থাকার নির্দেশ : রোহিতার আহ্বায়ক বহিষ্কার মণিরামপুরে ২দিন ব্যাপি ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলার শুভ উদ্বোধন মণিরামপুরে গ্রাম ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় স্কুল ছাত্রীর হাতে পঁচন ।। আদালতে মামলা মণিরামপুরে সাবেক অধ্যক্ষ মাওলানা বজলুর রহমানের ইন্তেকাল আয়েবাপিসি’র সাধারন সম্পাদক বকুল খানকে যুক্তরাজ্যে বিভিন্ন সংগঠনের সংবর্ধনা সাতবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদ সচিবের প্রকাশ্যে ঘুষ গ্রহন মণিরামপুর জুয়েলারী সমিতি পক্ষ থেকে কাউন্সিলর বাবুলাল চৌধুরীকে সংবর্ধনা মণিরামপুরের শীর্ষ ব্যবসায়ী রতন পালের স্ব-পরিবারে ভারত পাড়ি! কিন্তু কেন ? আয়েবাপিসি’র অভিষেক উপলক্ষ্যে মতবিনিময় করতে সাধারন সম্পাদক বকুল খানের লন্ডন সফর মনিরামপুরে ১ কেজি গাঁজাসহ মহিলা কারবারি আটক

ভোর রাত থেকে ভারি বর্ষণে পানির নিচে রাজধানীর কয়েকটি গূরুত্বপূর্ণ সড়ক

  • আপডেট: সোমবার, ২০ জুলাই, ২০২০
  • ২৩৩ দেখেছেন

শাহ্ জালাল, ঢাকা থেকে।।
রাজধানীতে ভোর রাত থেকে সকাল ৮ টা পর্যন্ত চলেছে ভারি বর্ষণ। সোমবার (২০ জুলাই ) ভোর থেকেই আকাশে ছিল মেঘের ঘনঘটা। সকাল ৩ টা বাজতেই শুরু হয় বৃষ্টি প্রায় পাঁচ ঘণ্টার টানা বৃষ্টিতে অলি গলি পানিতে তলিয়ে যায়। এমনকি মূল সড়কগুলোও ছিলো পানির যায়।
আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছে, সকাল ৪টা থেকে ৮টা পর্যন্ত রাজধানীতে বৃষ্টিপাতে রেকর্ড তৈরী হয়েছে। মৌসুমী বায়ুর প্রভাবে রাজধানীতে থেমে থেমে বৃষ্টিপাত আরও দুই-তিনদিন হতে পারে। দিনের শুরুতেই এমন বৃষ্টি হওয়ায় অফিসগামী পড়েন বিপাকে। জলজটের কারণে রাস্তায় গাড়ি চলছে ধীর গতিতে, ফলে গাড়ির দীর্ঘ সারি পড়ে গেছে। ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে লোকজনকে। পানির কারণে হেঁটে যাওয়ারও কোনও উপায় নেই। তাই বাধ্য হয়েই গাড়িতে বসে থাকতে হচ্ছে।
এরই মধ্যে রাজধানীর কেন্দ্রস্থল ধানমন্ডির রাস্তায় পানি জমে গেছে। এমনকি কিছু ভবনের নিচ তলায় পানি উঠেছে, ফলে অফিসের কর্যক্রমে স্থবিরতা দেখা দিয়েছে। সেই সাথে মোহম্মদপুর থেকে জিগাতলা পর্যন্ত গাড়ির দীর্ঘ যানজট, এবং মিরপুর রোডেও একই অবস্থা। ধানমন্ডি ২৭ ও গ্রীনরোডে পানি জমে গেছে। সাভার, গাবতলী হয়ে আসা গাড়িগুলো রাস্তায় দাঁড়িয়ে আছে। এই যানজটের মধ্যে অফিস যাওয়ার চেষ্টা করছিলেন বেসরকারি কোম্পানির কর্মকর্তা মোশারফ হোসেন। তিনি বলেন, ‘আমি আমার কর্মস্থল গ্রীনরোড়ে ঘণ্টা খানিক দাঁড়িয়ে ছিলাম। কোনো যানবাহন পায়নি। ভিজে যাওয়ায় এখন বাসায় ফিরে যাচ্ছি। আমার মতো অনেকেই সকাল ৮টা থেকে গাড়ির জন্য দাঁড়িয়ে ছিলেন। জিগাতলা থেকে আসা আব্দুল বলেন, জলজটে পানি পার না হতে পারলে অফিসের গাড়ি ধরতে পারবো কিনা তার ঠিক নাই।
এদিকে কাঁঠাল বাগান এলাকায় অল্প বৃষ্টি হলেও রাস্তায় পানি আটকে যায়। অফিসের কাজে বের হতে হলে জুতা হাতে নিয়ে বরে হতে হয়। আজও তার ব্যাতিক্রম নয়।
দুপুর সাড়ে ১২ টায় প্রতিবেদন লেখা পর্যন্তও মেঘের কারনে অন্ধকার ছিল। সেই সাথে টিপটিপ বৃষ্টিও পড়ছিল। এছাড়াও মোহাম্মদপুর, জিগাতলা, গ্রীনরোড়, কাঁঠাল বাগান সহ বিভিন্ন এলাকায় পানি জমে আছে। কোথাও হাঁটু পানি, আবার কোথাও কোমর পানি জমে আছে।


এ খবর টি সোস্যাল মিডিয়াতে এ পোষ্ট করুন

এ জাতীয় আরও খবর




© All rights reserved © 2013-2022