ঢাকাশুক্রবার , ৭ আগস্ট ২০২০
আজকের সর্বশেষ সবখবর

সামান্য বৃষ্টিতেই রাজগঞ্জ বাজারের অধিকাংশ রাস্তায় কাঁদা-পানি: জনদুর্ভোগ

Tito
আগস্ট ৭, ২০২০ ৬:০৫ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

হেলাল উদ্দিন, রাজগঞ্জ থেকে ।।
সামান্য বৃষ্টি হলেই রাজগঞ্জ বাজারের অধিকাংশ জায়গায় কাঁদা-পানি জমে যাওয়ায় চলাচলে চরম দুর্ভোগের শিকার হচ্ছে সাধারণ পথচারীরা। সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে এই সমস্যা সমাধানের জোর দাবি জানিয়েছেন ভুক্তভোগী পথচারীরা।
মণিরামপুর উপজেলার প্রাচীনতম বাণিজ্যিক শহর রাজগঞ্জ বাজার। এই বাজারটি প্রায় সব অংশই চালুয়াহাটি ইউনিয়নের অন্তর্ভূক্ত।
রাজগঞ্জের পার্শ্ববর্তী অঞ্চলের হাজার হাজার মানুষ প্রতিদিন এ বাজারে আসে বিভিন্ন কাজ-কর্মের জন্য। কিন্তু চলতি বর্ষা মৌসুমে বাজারের অবস্থা অত্যান্ত বেহাল। কাঁদা-পানিতে একাকার। মানুষের চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে।
বিশেষ করে বর্ষা মৌসুমে দুর্ভোগ সীমাহীন। ত্রুটিপূর্ণ ড্রেনেজ ব্যবস্থা ও বৃষ্টির পানি তাৎক্ষনিকভাবে সম্প্রসারনের কোন সু-ব্যবস্থা না থাকায় সামান্য বৃষ্টিতেই বাজারের ব্যস্ততম সড়কের উপর দেখতে-দেখতে পানি জমে যায়। ফলে যাতায়াতের অনুপযোগী হয়ে পড়ে। এতে সাধারণ পথচারীদেরকে চরমভাবে ভোগান্তি পোহাতে হয়।
গত দুদিনের বৃষ্টির ফলে বাজারের অধিকাংশ রাস্তা প্লাবিত হতে দেখা গেছে। স্কুল রোডটির উপর পানি জমে থাকায় চলাচল করতে পারচ্ছে না পথচারীরা।
কোনো রাস্তার পাশে ড্রেনেজ ব্যবস্থা নেই। যে কারণে এসব রাস্তার উপর দীর্ঘসময় পানি জমে থাকে। ড্রেনের ময়লা আবর্জনা ঠিকমত পরিষ্কার না করার কারণে ড্রেনের ভিতর জমে থাকা ময়লা আবর্জনা রাস্তার উপর উঠে আসে।
বাজারের ব্যবসায়ী খলিলুর রহমান, লাভলু, আহম্মদ আলী, শহিদুল ইসলাম জানান- আমরা সংশ্লিষ্ট ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানকে বিষয়টি জানিয়েছি। তিনি বিষয়টি দেখবেন বলেছেন।
কয়েকজন পথচারী বলেন, রাজগঞ্জ বাজারে বর্ষা মৌসুমে চলাচল করা একেবারে অনুপযোগী। বাজার সদয় করতে যাওয়া খুব কষ্টকর হয়ে দাড়িয়েছে। তাই সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নিকট বাজারের ব্যবসায়ী ও পথচারীদের দাবী বাজারের ভিতরের রাস্তাগুলো দ্রুত সংস্কার করা।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।