1. admin@manirampurprotidin.com : admin :
  2. hnurul146@gmail.com : nurul :
  3. titonews24@gmail.com : Tito :
শিরোনাম :
কেশবপুর উপজেলা চেয়ারম্যানকে হত্যার হুমকির প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মণিরামপুরে সাংবাদিক পুত্র মাহির গোল্ডেন জিপিএ-৫ লাভ মণিরামপুরে ইকবালকে কমিটি গঠন কার্যক্রম থেকে বিরত থাকার নির্দেশ : রোহিতার আহ্বায়ক বহিষ্কার মণিরামপুরে ২দিন ব্যাপি ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলার শুভ উদ্বোধন মণিরামপুরে গ্রাম ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় স্কুল ছাত্রীর হাতে পঁচন ।। আদালতে মামলা মণিরামপুরে সাবেক অধ্যক্ষ মাওলানা বজলুর রহমানের ইন্তেকাল আয়েবাপিসি’র সাধারন সম্পাদক বকুল খানকে যুক্তরাজ্যে বিভিন্ন সংগঠনের সংবর্ধনা সাতবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদ সচিবের প্রকাশ্যে ঘুষ গ্রহন মণিরামপুর জুয়েলারী সমিতি পক্ষ থেকে কাউন্সিলর বাবুলাল চৌধুরীকে সংবর্ধনা মণিরামপুরের শীর্ষ ব্যবসায়ী রতন পালের স্ব-পরিবারে ভারত পাড়ি! কিন্তু কেন ?

মানবসেবায় দেশব্যাপী প্রশংসিত তাকওয়া

  • আপডেট: সোমবার, ২০ জুলাই, ২০২০
  • ৪৯৬ দেখেছেন

মনিরুজ্জামান টিটো।।
বিশ্ব মহামারী করোনকালে দেশজুড়ে মানবসেবায় সাঁড়া জাগিয়েছে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন তাকওয়া। প্রায় পাঁচ’শ করোনা সংক্রমন ও উপস্বর্গ নিয়ে মৃত ব্যাক্তির দাফন সম্পন্ন করে মানবতার অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে সংগঠনটি। সংগঠনের প্রতিটি সদস্যদের সম্পূর্ণ নিজ উদ্যোগে চলছে সেবার কার্যক্রম।
জানা যায়, দেশ জুড়ে প্রায় ৫৭ টি জেলার প্রতিটি উপজেলায় পনের জন নারী-পূরুষের সমন্বয়ে রয়েছে একটি করে কমিটি। দেশের যেকোন প্রান্তে করোনা সংক্রামিত ও উপসর্গ নিয়ে মৃত ব্যাক্তির লাশ দাফনের যাবতীয় দায়িত্ব নিয়ে সুন্দর এবং ধর্মীয় বিধানমতে সম্পন্ন করতে ছুটে যাচ্ছে সংগঠনের সদস্যবৃন্দ। সংবাদ পাওয়া মাত্রই জীবনের ঝুঁকি থাকা স্বত্ত্বেও দ্বীনি খেদমতের তাগিতে মৃতের দাফন কাজে নিজেদের নিয়োজিত রেখেছেন তাকওয়া’র সদস্যবৃন্দ।
তাকওয়া মণিরামপুরের স্বেচ্ছাসেবক মাও. আশরাফ ইয়াাসিন জানান, রোহিঙ্গাদের সেবার মধ্যদিয়ে গঠিত তাকওয়া ফাউন্ডেশন দেশের সর্বত্র যেকোন মানবতায় সর্বদা নিয়োজিত রয়েছে। ফাউন্ডেশনটি সম্পূর্ণ নিজেদের অর্থায়নে পরিচালিত হয়ে আসছে।

সংগঠনের প্রধান উদ্যোক্তা ও পৃষ্টপোষক মাও. গাজী ইয়াকুব তার স্ত্রীর আর্থিক সহায়তা ও ব্যাক্তিগত অর্থায়নে প্রথমে রোহিঙ্গা অভুক্তদের খাবার বিতরনের মধ্য দিয়ে কার্যক্রম শুরু করেন। এরপর ঢাকার একটি বস্তিতে অগ্নিকান্ডে সর্বস্ব হারানো ব্যাক্তিদের সপ্তাহব্যাপী রান্না করা খাবারের দায়িত্ব নিয়ে দেশব্যাপী প্রশংসিত হন গাজী ইয়াকুব। পরবর্তীতে করোনা মহামারিতে দেশের বিভিন্ন স্থানে মৃত ব্যাক্তিদের লাশ দাফনে স্বয়ং নিকটাত্মীদের অনিহা দেখে ‘’মানবতার কল্যানে আমরা’’ স্লোগানে সারা দেশে স্বেচ্ছাসেবী কমিটি গঠনের আহ্বান জানান মাও. গাজী ইয়াকুব। তার ডাকে দেশব্যাপী সাড়া দেয় প্রায় দুই হাজার নারী-পূরুষ। ইতিমধ্যে ৫৭ টি জেলার প্রায় প্রতিটি উপজেলায় নারী-পূরুষের সমন্বয়ে গঠন করা হয়েছে স্বেচ্ছাসেবী কমিটি। খবর পাওয়া মাত্রই করোন সংক্রামিত বা উপসর্গ নিয়ে মৃত ব্যাক্তির বাড়িতে হাজির হচ্ছেন তাকওয়া ফাউন্ডেশনের সদস্যবৃন্দ।
লাশ দাফনের পাশাপাশি অসহায় মানুষের গৃহ নির্মাণ, মসজিদ-মাদরাসা সংস্কারসহ বিভিন্ন মানবিক কাজ করে চলেছে সংগঠনটি।
জানা যায়, দীর্ঘ সময়কাল মাও. গাজী ইয়াকুবের নেতৃত্বে স্বেচ্ছাসেবকরা দাফনসহ নানা মানবিক কার্য সম্পাদন করলেও সম্প্রতি সংগঠনটি সরকারী তালিকাভুক্ত হয়েছে। এখন তাকওয়া ফাউন্ডেশন একটি পূর্ণাঙ্গ স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন হিসেবে করোনাকালে সংগঠনের কর্মঠ ও প্রশিক্ষিত একদল স্বেচ্ছাসেবক রাত-দিন নিরলস সেবাদান করে চলেছে। করোনাকালে সেবাদান গুলোর মধ্যে মৃতের লাশ দাফনের মতো সর্বোচ্চ গূরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করে সংগঠন প্রশংসা কুড়িয়েছে বিভিন্ন মহলে। পাশাপাশি এ কাজে নিজেদের নিয়োজিত রাখতে পেরে শুকরিয়া জানিয়েছেন তাকওয়া ফাউন্ডেশনের স্বেচ্ছাসেবী সদস্যবৃন্দ।


এ খবর টি সোস্যাল মিডিয়াতে এ পোষ্ট করুন

এ জাতীয় আরও খবর




© All rights reserved © 2013-2022