1. admin@manirampurprotidin.com : admin :
  2. hnurul146@gmail.com : nurul :
  3. titonews24@gmail.com : Tito :
শিরোনাম :
কেশবপুর উপজেলা চেয়ারম্যানকে হত্যার হুমকির প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মণিরামপুরে সাংবাদিক পুত্র মাহির গোল্ডেন জিপিএ-৫ লাভ মণিরামপুরে ইকবালকে কমিটি গঠন কার্যক্রম থেকে বিরত থাকার নির্দেশ : রোহিতার আহ্বায়ক বহিষ্কার মণিরামপুরে ২দিন ব্যাপি ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলার শুভ উদ্বোধন মণিরামপুরে গ্রাম ডাক্তারের ভুল চিকিৎসায় স্কুল ছাত্রীর হাতে পঁচন ।। আদালতে মামলা মণিরামপুরে সাবেক অধ্যক্ষ মাওলানা বজলুর রহমানের ইন্তেকাল আয়েবাপিসি’র সাধারন সম্পাদক বকুল খানকে যুক্তরাজ্যে বিভিন্ন সংগঠনের সংবর্ধনা সাতবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদ সচিবের প্রকাশ্যে ঘুষ গ্রহন মণিরামপুর জুয়েলারী সমিতি পক্ষ থেকে কাউন্সিলর বাবুলাল চৌধুরীকে সংবর্ধনা মণিরামপুরের শীর্ষ ব্যবসায়ী রতন পালের স্ব-পরিবারে ভারত পাড়ি! কিন্তু কেন ?

ভুয়া সাংবাদিক আটক!

  • আপডেট: শুক্রবার, ২১ আগস্ট, ২০২০
  • ৮৫৬ দেখেছেন

রিপন হোসেন সাজু, মণিরামপুর থেকে।।
যশোরে সাংবাদিক পরিচয়ে ‘সাংবাদিকতার কার্ড’ করে দেওয়ার প্রলোভন দেখিয়ে টাকা নেওয়ার অভিযোগে প্রদীপ কুমার সাহা (৩৮) নামে এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ। গতকাল শুক্রবার বিকেলে সদর উপজেলার রূপদিয়া বাজার থেকে তাকে আটক করা হয়। আটক প্রদীপ কুমার সাহা অভয়নগর উপজেলার রাজঘাট এলাকার রতন সাহার ছেলে। বর্তমানে তিনি যশোর সদর উপজেলার নরেন্দ্রপুর ইউনিয়নের রুপদিয়া বাজারের সুরত আলীর বাড়িতে ভাড়া থাকেন।
ভুক্তভোগী বাঘারপাড়া উপজেলার আন্দুলবাড়িয়া গ্রামের জয়দেব চক্রবর্তীর ছেলে সুমন চক্রবর্তীর অভিযোগ, তিনি সদরের রূপদিয়া বাজারে তার মামার একটি ওষুধের দোকানে কাজ করেন। প্রদীপ কুমার সাহা প্রায় সময় তার কাছে এসে নিজেকে সাংবাদিক পরিচয় দিতেন। এ সময় তিনি তাকে প্রস্তাব দেন যে, ‘তোমাকে এমন একটি সাংবাদিকতার কার্ড করে দেবো, যে কোন বিপদ হলে কাউকে কার্ডটি দেখালে উদ্ধার হওয়া যাবে। এই কার্ড যার কাছে থাকবে পুলিশ তাকে সালাম দিয়ে চলবে।’ ফলে প্রলোভনে পড়ে তিনি প্রদীপ কুমার সাহাকে নগদ ২ হাজার টাকা দেন। কিন্তু তাকে কার্ড দেয়া হয়নি। এই কার্ড চাওয়ায় তাকে হুমকি দেয়া হয়। শুধু তাই নয়, তার (সুমনের) কাছে আরও ১৫ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করেন প্রদীপ কুমার সাহা। এরপর গত ২০ আগস্ট ওই ব্যক্তি তার কাছে এসে জোরপূর্বক ৫ হাজার টাকা নিয়ে যান। এ ঘটনায় তিনি স্থানীয় নরেন্দ্রপুর পুলিশ ক্যাম্পে অভিযোগ করেন। এরই প্রেক্ষিতে ক্যাম্পের এসআই গোলাম মোর্তুজার গতকাল বিকেলে রূপদিয়া বাজার থেকে তাকে প্রদীপ কুমার সাহাকে আটক করেন।
কোতয়ালি থানা পুলিশের ইনসপেক্টর (তদন্ত) শেখ তাসমীম আলম জানান, আটক প্রদীপ কুমার সাহা নিজেকে সাংবাদিক পরিচয় দেন। তার কাছে একটি কার্ড পাওয়া গেছে। তাতে লেখা রয়েছে ‘ন্যাশনাল ক্রাইম জার্নালিস্ট অ্যান্ড রাইটস ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও নির্বাহী পরিচালক জিএম মিজানুর রহমান।’ জিএম মিজানুর রহমান দৈনিক বাংলাদেশ বার্তার যশোর ব্যুারো প্রধান। এছাড়া তিনি হিউম্যাান রাইটস রিভিউ সোসাইটির খুলনা বিভাগীয় সভাপতি। আর প্রদীপ কুমার সাহা এই সংগঠনের খুলনা বিভাগীয় যুগ্ম মহাসচিব। যার বিভাগীয় অফিস রূপদিয়া বাজারে। পুলিশের ওই কর্মকর্তা বলেন, কার্ডটি দেখে সন্দেহ হওয়ায় তিনি কয়েকজন সাংবাদিককে দেখিয়েছেন। এই কার্ড দেখে সাংবাদিকরা ভুয়া বলে জানালে প্রদীপকে আটক করা হয়। তার বিরুদ্ধে মামলা করার প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে। এদিকে আটক প্রদীপ কুমার সাহা জানান, তিনি কয়েকদিন হলো সাংবাদিকতা করছেন। তার নেতা জিএম মিজানুর রহমান তাকে সাংবাদিকতার কার্ডটি দিয়েছেন


এ খবর টি সোস্যাল মিডিয়াতে এ পোষ্ট করুন

এ জাতীয় আরও খবর




© All rights reserved © 2013-2022